সংকটের দিনে সামাজিক পুঁজি


আলতাফ পারভেজ

মহামারি, কর্মহীনতা, ক্ষুধা—একসঙ্গে বহু সংকটে মানুষ। এরকম সংকটে যেমন সরকার ও রাষ্ট্রের চরম পরীক্ষা হচ্ছে—তেমনি ‘সামাজিক-পুঁজি’রও মোটাদাগে ময়নাতদন্ত হয়ে যাচ্ছে।

চলতি সংকটে গত এক বছর ধরেই দেশের বিভিন্ন স্থানে তরুণরা নানান সামাজিক ব্যানারে মানুষ বাঁচানোর কাজে নামছে। এভাবে অনেকটা নীরবেই দেশে কেজো মানুষদের নতুন এক প্রজন্ম গড়ে উঠছে।

সম্প্রতি রাজশাহীতে দেখা গেল ‘জামিল ব্রিগেড’ নামে এক দল তরুণ-তরুণী কোভিড আক্রান্তদের অক্সিজেন পাওয়ার ক্ষেত্রে সাহায্য করছে। কেউ চাইলে অ্যাম্বুলেন্স সেবা নিয়েও হাজির হচ্ছে তারা।

মহামারির তীব্র বিস্তারের মাঝেই এ ছেলেমেয়েরা এরকম কাজে নেমেছে।

জামিল ব্রিগেডের এক সদস্যের সঙ্গে ফোনে কথা হলো। একটা রাজনৈতিক দলের সঙ্গে আছেন তিনি। কিন্তু দলের সীমা ছাড়িয়ে তাঁদের কর্মসূচির পরিসর। প্রায় ৩০ ওয়ার্ডে ৩০০ মানুষকে তারা ইতোমধ্যে এই উদ্যোগে শামিল করেছেন। অক্সিজেন, মাস্ক, অ্যাম্বুলেন্স ইত্যাদি সংগ্রহ ও বিতরণের পাশাপাশি কাজের জন্য মানুষের স্বপ্রণোদিত সহায়তাও নিচ্ছে এই স্বেচ্ছাসেবিরা।

নিশ্চয়ই দেশজুড়ে মহামারির বিস্তারের মাঝে এরকম আয়োজন অতি ক্ষুদ্র অবদান রাখছে। পরিস্থিতি সামাল দেয়ার মূল দায় সরকারেরই থাকছে। কিন্তু মানুষ বাঁচানোর কাজে আগ্রহী তরুণ-তরুণীদের সঙ্গে নিয়ে কোভিডের নিয়মবিধি মেনে দেশের সকল রাজনৈতিক দলের এভাবে নামা দরকার। যেসব দল ও সংগঠন এই সংকটে মানুষের পাশে দাঁড়াবে আগামীতে মানুষ তাদেরই খুঁজে নেবে রাজনৈতিক প্রয়োজনে। পুরানো ধাঁচের বুলিবাগিশতার ইতি ঘটতে বাধ্য।

রাজশাহীতে জামিল ব্রিগেডের কর্মীদের ডাকতে ফোন নম্বর: ০১৭১২২৭৭৮৭১, ০১৭২৩৯০৪৯০১, ০১৭১৪২৭০৬৩৬।

 

এসবি/জেআর