রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে মেসি


সাহেব-বাজার ডেস্ক : সৌদি আরবের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ মিশন শুরু হচ্ছে লিওনেল মেসির নেতৃত্বাধীন আর্জেন্টিনার। ক্যারিয়ারের শেষ ও পঞ্চমবারের মতো বিশ্বকাপে খেলতে নামার আগে বেশ কিছু রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে মেসি।

মঙ্গলবার কাতারে লুসাইল আইকনিক স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময়ে বিকেল ৪টায় অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি। বিশ্বকাপের আট ভেন্যুর মধ্যে সবচেয়ে বড় এই মাঠে এ দিন প্রায় ৮০ হাজার দর্শক খেলা উপভোগ করবেন।এবারের আসরে খেলতে নেমেই সর্বোচ্চ পাঁচটি বিশ্বকাপ খেলা ক্লাবের সদস্য হবেন আর্জেন্টাইন এ তারকা। এ তালিকায় থাকা আগের তিনজনের সঙ্গে এবার যুক্ত হচ্ছেন লিওনেল মেসি ও পর্তুগালের ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো।

এর আগে মেক্সিকোর কিংবদন্তি গোলরক্ষক আন্তোনিও কারবাহাল, ডিফেন্ডার রাফায়েল মার্কেজ ও জার্মানির হয়ে বিশ্বকাপ জেতা মিডফিল্ডার লোথার ম্যাথিউস পাঁচটি বিশ্বকাপ খেলেছেন। কাতার বিশ্বকাপের আগে ২০০৬, ২০১০, ২০১৪ ও ২০১৮ এই চার বিশ্বকাপে খেলেছেন মেসি ও রোনালদো।

চারটি বিশ্বকাপ মিলিয়ে ১৯টি ম্যাচ খেলেছেন আর্জেন্টিনার ফরোয়ার্ড লিওনেল মেসি। রোনালদোও মেসির সমান চারটি বিশ্বকাপ খেলেছেন, তবে ১৭টি ম্যাচ খেলে মেসির চেয়ে পিছিয়ে রোনালদো।

ফুটবল বিশ্বকাপের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি ২৫টি ম্যাচ খেলেছেন জার্মানির ম্যাথিউস। আর ৭টি ম্যাচ খেললেই ম্যাথাউসকে টপকে বিশ্বরেকর্ড গড়বেন মেসি। এ জন্য সেমিফাইনালে উঠতে হবে মেসির আর্জেন্টিনাকে।

সেমি পর্যন্ত ৬টি ম্যাচ খেলবেন মেসি। গ্রুপপর্বে ৩টি, শেষ ষোলো, কোয়ার্টার ফাইনাল ও সেমি মিলিয়ে মোট ৬টি। সেমিতে হেরে গেলে তৃতীয় স্থান নির্ধারণীসহ ৭টি ম্যাচ হবে মেসির। অথবা ফাইনালে উঠলেও এই আসরে ৭টি ম্যাচ হয়ে যাবে মেসির।

বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার হয়ে সবচেয়ে বেশি ২১টি ম্যাচ খেলেছেন কিংবদন্তি ডিয়াগো ম্যারাডোনা।

বিশ্বকাপের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি জয়ের স্বাদ পেয়েছেন জার্মানির সাবেক স্ট্রাইকার মিরোস্লাভ ক্লোসা। চার বিশ্বকাপে ১৭টি জয় আছে তার। অন্যদিকে মেসির ১২টি। এবারের আসরে গ্রুপপর্ব থেকে সেমিফাইনাল পর্যন্ত সব ম্যাচ জিতলেই ক্লোসাকে পেছনে ফেলবেন মেসি।

অধিনায়ক হিসেবে বিশ্বকাপের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি ১৭ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন মেক্সিকোর সাবেক ডিফেন্ডার রাফায়েল মার্কেজ। এই তালিকার দ্বিতীয় স্থানে আছেন আর্জেন্টিনার কিংবদন্তি দিয়াগো ম্যারাডোনা। ১৬ ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন তিনি। বিশ্বকাপ মঞ্চে এ পর্যন্ত ১২ ম্যাচে আর্জেন্টিনাকে নেতৃত্ব দিয়েছেন মেসি। সেমিফাইনালে উঠলে মার্কেজকে ছাড়িয়ে যাবেন এই মহাতারকা।

এখন পর্যন্ত চার বিশ্বকাপের মধ্যে ২০০৬, ২০১৪ ও ২০১৮ আসরে গোলের দেখা পেয়েছেন মেসি। ২০১০ সালে গোল করতে পারেননি। এবার কাতার বিশ্বকাপে গোল করলে প্রথম আর্জেন্টাইন হিসেবে চার বিশ্বকাপে গোল করার রেকর্ড গড়বেন মেসি।

বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার হয়ে সর্বোচ্চ ১০ গোল করেছেন বাতিস্তুতা। বাতিস্তুতাকে টপকাতে ৫ গোল লাগবে মেসির। বর্তমানে মেসির মোট গোল ৬টি। ২০০৬ সালে ১টি, ২০১৪ সালে ৪টি এবং ২০১৮ সালে ১টি গোল করেছিলেন মেসি।

 

এসবি/এমই