রাজশাহীতে ৬১.৪ মিলিমিটার বৃষ্টি


নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহীতে ৬১ দশমিক ৪ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে। এটিই মৌসুমের প্রথম ভারি বর্ষণ। বুধবার (০৫ মে) রাত ৮টা থেকে রাত ৯টা ২৫ মিনিট পর্যন্ত এই বৃষ্টি হয়। এ বছর একদিনেই রাজশাহীতে এটিই সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের উচ্চ পর্যবেক্ষক দেবল কুমার মৈত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, এক ঘণ্টায় ৪৪ থেকে ৮৮ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হলে তাকে ভারি বর্ষণ ধরা হয়। সে অনুযায়ী বুধবার রাতে ভারি বর্ষণ হয়েছে।

তিনি আরও জানান, ভারিবর্ষণের ফলে রাজশাহীতে তাপমাত্রা কিছুটা কমেছে। বুধবার জেলায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল ৩৩ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এ দিন ভোরে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ২৩ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বৃষ্টির পর বৃহস্পতিবার দিন শুরু হয়েছে ২১ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। তাপমাত্রা আগের দিনের চেয়ে কিছুটা কম অনুভূত হচ্ছে।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, জেলায় এ বছর বৃষ্টিপাত কম হচ্ছে। বুধবারের আগে গত ৩ মে দিবাগত রাতে এখানে ১২ দশমিক ৮ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়। এর আগে ১ মে ৩ দশমিক ২ মিলিমিটার, ৩০ এপ্রিল শূন্য দশমিক ৩ মিলিমিটার, ২২ এপ্রিল ৫ দশমিক ৬ মিলিমিটার, ১২ এপ্রিল ৭ দশমিক ৪ মিলিমিটার এবং ১০ এপ্রিল ২ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। পুরো মার্চজুড়ে রাজশাহীতে কোন বৃষ্টিপাতই হয়নি। টানা খরায় রাজশাহীতে ফসলের ক্ষতি হচ্ছিল।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক কেজেএম আবদুল আউয়াল বলেন, টানা খরার পর ভারিবর্ষণে কৃষিতে উপকার হয়েছে। আম, লিচু চাষিরা উপকার পাবেন। এছাড়া খরায় পানের কুশি বাড়ছিল না। এখন আবার বৃদ্ধি শুরু হবে। বৃষ্টিতে পাকা ধানেরও তেমন ক্ষতি হয়নি।

এসবি/আরআর/জেআর