যেসব রাশির জাতক-জাতিকাদের সঙ্গী জোটে না!

  • 1
    Share

সাহেব-বাজার ডেস্ক : বিভিন্ন রাশির জাতকেরা কে কেন একা থাকেন, তার কারণ লুকিয়ে আছে তার রাশিতেই। বিভিন্ন রাশির জাতক বিভিন্ন কারণে একা থাকতে পছন্দ করেন। জেনে নিন বিভিন্ন রাশির জাতকদের একা থাকার কারণ।

মেষ রাশি
অত্যন্ত কঠোর পরিশ্রমী হন মেষ রাশির জাতকরা। এরা কারোর জন্য সময় বের করতে পারেন না সে ভাবে। সঙ্গীকে সময় দিতে গিয়ে নিজের কাজে কাটছাঁট করা একেবারেই পছন্দ নয় মেষ রাশির জাতকরা। অন্য কারোর চাহিদা মেটানোর জন্য নিজের কাজ বন্ধ রাখতে একেবারেই পারেন না মেষ রাশির জাতকরা। সেই কারণে সঙ্গীও তাদের সঙ্গে বেশিদিন থাকতে চান না।

বৃষ রাশি
অত্যন্ত একগুঁয়ে ও জেদি প্রকৃতির হন বৃষ রাশির জাতকরা। এরা একবার যেটা ঠিক করেন, সেটা করেই ছাড়েন। সেই কারণে সঙ্গী কী বলল না বলল তা নিয়ে খুব একটা মাথা ঘামান না বৃষ রাশির জাতকরা। এরা যা করবেন বলে ঠিক করেন, তার মাঝখানে কেউ এসে পড়লে এরা সঙ্গীর সঙ্গে মানিয়ে নিয়ে থাকার তুলনায় একা থাকতেই বেশি পছন্দ করেন। সেই কারণে প্রেমের সঙ্গী হওয়ার থেকে বন্ধু হতেই বেশি স্বচ্ছন্দ বৃষ রাশির জাতকরা।

​মিথুন রাশি
নিজেদের বয়স নিয়ে সব সময় একটু বেশিই ব্যস্ত থাকেন মিথুন রাশির জাতকরা। যখন এদের বয়স কম থাকে তখন এরা মনে করেন যে এত তাড়াতাড়ি সিরিয়াস সম্পর্কে জড়ানোর কোনও প্রয়োজন নেই। আবার বয়স একটু বেশি হয়ে গেলে মিথুন রাশির জাতকরা মনে করেন যে নতুন করে সম্পর্কে জড়ানোর বয়স আর তাঁদেকর নেই। সেই কারণে অনেক সময় একাই থেকে যান মিথুন রাশির জাতকরা।

​কর্কট রাশি
নিজেদের অতীত জীবন সহজে ভুলতে পারেন না কর্কট রাশির জাতকরা। এর প্রভাব এদের বর্তমান জীবনেও পড়ে। পুরনো সম্পর্ক থেকে কিছুতেই বেরিয়ে আসতে পারেন না কর্কট রাশির জাতকরা। তার জেরে অনেক সময় বর্তমান সম্পর্ক এতটাই তিক্ত হয়ে যায় যে সম্পর্ক ভেঙেও যেতে পারে। নতুন জীবন নতুন ভাবে শুরু করার থেকে পুরনো জীবনকেই আঁকড়ে ধরে রাখতে চান এরা।

​সিংহ রাশি
নতুন নতুন মানুষের সঙ্গে মিশতে খুবই পছন্দ করেন সিংহ রাশির জাতকরা। কিন্তু সেই সম্পর্ককে প্রেমের সম্পর্কে পরিণত করতে খুব একটা আগ্রহী হন না সিংহ রাশির জাতকরা। ডেটিং সাইটে কারোর সঙ্গে আলাপ হলেও সেই আলাপ পরস্পরকে টেক্সট পাঠানো পর্যন্তই রাখতে চান এরা। ডেটিং অ্যাপে আলাপ হওয়া নতুন বন্ধুর সঙ্গে মুখোমুখি দেখা করা বা ভিডিয়ো কল করায় প্রবল অনাসক্তি থাকে এদের। সেই কারণে অনেক সময় একাই থেকে যান এরা।

​কন্য়া রাশি
সঙ্গী কেমন হবে তার দারুণ একটা স্ট্যান্ডার্ড মনে মনে ঠিক করে রাখেন কন্যা রাশির জাতকরা। সেই কারণে সত্যি সত্যি যখন কেউ জীবনে আসে তখন আর তাকে পছন্দ হয় না কন্যা রাশির জাতকদের। সঙ্গীর প্রতি এদের চাহিদা এত বেশি থাকে যে কারোর সঙ্গে জীবনে থিতু হতে পারেন না এরা। তার থেকে এরা একা থাকতেই পছন্দ করেন।

​তুলা রাশি
পুরনো প্রেম কেটে যাওয়ার কারণে অনেক সময় তুলা রাশির জাতকদের মনে এই ধারণা জন্মে যায় যে কারোর ভালোবাসার পাওয়ার যোগ্যতা নেই তাঁদের। সেই কারণে নিজেকে আরও বেশি করে গুটিয়ে নেন এরা। কোনও সঙ্গী এদের কাছে আসতে চাইলেও এরা দূরে সরে যান। জীবনে সঙ্গী থাকার থেকে একা থাকাই সেই কারণে বেশি পছন্দ করেন তুলার রাশির কোনও কোনও জাতক। নতুন করে আঘাত পাওয়াকে এরা ভয় পান।

​বৃশ্চিক রাশি
কারোর সঙ্গে সিরিয়াস সম্পর্কে জড়ানোর আগে অত্যন্ত সাবধানী হয়ে যান বৃশ্চিক রাশির জাতকরা। সম্পর্কে জড়ালে কী কী হতে পারে সেই বিষয়ে অতিরিক্ত চিন্তা ভাবনা করেন এরা। বিশেষ করে খারাপ চিন্তগুলোই এদের মাথায় আগে আসে। কোনও সম্পর্ক যদি একগাদা নেগেটিভ চিন্তা দিয়ে শুর হয় তাহলে স্বাভাবিক ভাবেই সেই সম্পর্ক বেশিদূর গড়ায় না। সেই কারণে অনেক সময় একাই থেকে যান বৃশ্চিক রাশির জাতকরা।

​ধনু রাশি
জীবন নিজের খেয়াল খুশিমতো বাঁচতে ভালোবাসেন ধনু রাশির জাতকরা। একঘেয়ে জীবন এদের একেবারেই অপছন্দ। কারোর সঙ্গে সম্পর্কে জড়ালে জীবন থেকে সব থ্রিল চলে যাবে বলে মনে করেন ধনু রাশির জাতকরা। সিরিয়াস সম্পর্ক মানেই একঘেয়ে জীবন বলে আশঙ্কা করেন এরা। সেই কারণে জীবেন একা থাকাই বেশি পছন্দের ধন রাশির জাতকদের কাছে।

​মকর রাশি
অত্যন্ত কেরিয়ারিস্টিক হন মকর রাশির জাতকরা। নিজেদের পেশাগত জীবনে উন্নতি করাই এদের জীবনের একমাত্র লক্ষ্য। সম্পর্কে জড়ালে কেরিয়ারে উন্নতিতে বাধা আসতে পারে বলে আশঙ্কা করেন এরা। সঙ্গীর জন্য সময় বের করার মতো সময় এদের থাকে না। পেশাগত জীবন ও ব্যক্তিগত জীবনের মধ্যে ব্যালান্স করতে হলে এরা পেশাগত জীবনকেই অগ্রাধিকার দেবেন। সেই কারণে অনেক সময় এরা একা থাকেন।

​কুম্ভ রাশি
নিজেকে নিজে বড্ড বেশি ভালোবাসেন কুম্ভ রাশির জাতকরা। নিজের সঙ্গে সময় কাটাতেই এরা সবথেকে বেশি পছন্দ করেন। ভালোবাসা নিয়ে এরা খুব একটা ব্যস্ত নন। অন্য কারোর সঙ্গে মনের কথা প্রকাশ করতে এরা লজ্জা পান। নিজের সঙ্গে সময় কাটাতেই সবথেকে বেশি ভালোবাসেন বলে একা জীবন অনেক সময় বেছে নেন কুম্ভ রাশির জাতকরা।

​মীন রাশি
অত্যন্ত দয়ালু প্রকৃতির হন মীন রাশির জাতকরা। নিজেদের কী প্রয়োজন তা নিয়ে মাথা ঘামানোর আগে অন্যের কী দরকার সেটা বেশি ভাবেন এরা। বন্ধু বান্ধব ও আত্মীয় স্বজনদের দিকেসব সময় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন মীন রাশির জাতকরা। নিজের প্রয়োজনের দিকে মন দেন না বলেই তার যে একটি সঙ্গীরও প্রয়োজন, সে কথাও অনেক সময় ভুলে যান মীন রাশির জাতকরা। সঙ্গীকে সময় দিতে না পারার জন্যই এদের প্রেমের সম্পর্ক অনেক সময় ভেঙে যায়।

 

এসবি/এমই


  • 1
    Share