‘বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে কাজ করবে সেনাবাহিনী’


সাহেব-বাজার ডেস্ক : বাংলাদেশ সেনাবাহিনী জনগণকে সঙ্গে নিয়ে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে কাজ করে যাবে বলে জানিয়েছেন সেনাপ্রধান জেনারেল এসএম শফিউদ্দিন আহম্মেদ। বৃহস্পতিবার সকালে ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় শীতকালীন বহিরাঙ্গন অনুশীলনের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সেনাপ্রধান বলেন, ‘সেনাবাহিনী সাধারণ জনগণের পাশে থেকে কাজ করে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে মানুষকে এক লাখ কম্বল দেয়া হয়েছে। এসব কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে সাধারণ মানুষের শক্তি-সমর্থন নিয়ে সেনাবাহিনী কাজ করবে।’

বক্তব্যে বাস্তবসম্মত ও যুগোপযোগী প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীকে একটি বিশ্বমানের বাহিনী হিসেবে গড়ে তোলার প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলে জানান জেনারেল এসএম শফিউদ্দিন আহম্মেদ।

সমাপনী অনুষ্ঠান উপলক্ষে অসহায় মানুষের মাঝে ফ্রি মেডিক্যাল ক্যাম্প এবং শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন সেনাপ্রধান। পরে সমাপনীতে সেনাসদস্যদের পাশে থেকে অনুশীলন পর্যবেক্ষণ করেন। পরে আর্মি ফিল্ড হেডকোয়ার্টার মিডিয়া সেলে প্রশিক্ষণের ওপর প্রেসব্রিফিং শেষে গণমাধ্যম কর্মীদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন তিনি।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- সেনাসদরের প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসার, জিওসি আর্মি ট্রেনিং অ্যান্ড ডকট্রিন কমান্ড এবং অন্যান্য জ্যেষ্ঠ সামরিক কর্মকর্তারা।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ৫০ বছরপূর্তিতে এবার প্রথমবারের মতো ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলায় সেনাবাহিনী চার সপ্তাহব্যাপী চূড়ান্ত আক্রমণ অনুশীলন ও লজিস্টিক ফিল্ড ট্রেনিং এক্সারসাইজ পরিচালনা করে। বাহিনীতে নতুন সংযোজিত অস্ত্র ও সরঞ্জাম এবারের অনুশীলনে ব্যবহৃত হয় এবং সেনাবাহিনীর লজিস্টিক স্থাপনাসমূহ প্রথমবারের মতো বহিরাঙ্গনে মোতায়েন হয়। অনুশীলনে সাঁজোয়া বহর, এপিসি, দূরপাল্লার এমএলআরএস-এর পাশাপাশি সেনাবাহিনীর ছত্রীসেনা এবং বিমান বাহিনীর জঙ্গি বিমানও অংশগ্রহণ করে। সেনাবাহিনীর কাসা-২৯৫ এ বিমান থেকে নেমে আসে প্যারাট্রুপার।

এসবি/এআইআর