অনেক রোগ দূর করে হলুদ-আদা চা

  • 1
    Share

সাহেব-বাজার ডেস্ক : অনেক উপকার পাওয়া যাবে হলুদ-আদা চা খেলে। কারণ এতে রয়েছে, শক্তিশালী অ্যান্টি অক্সিডেন্ট। এছাড়াও রয়েছে ম্যাগনেসিয়াম, পটাশিয়াম, ক্যালসিয়াম, আয়রন, কপার এবং জিঙ্কের মতো খনিজ পদার্থ।

আপনি যদি মনে করেন হজমে সমস্যা হচ্ছে, ডায়াবেটিসে আক্রান্ত, হাই কোলেস্টেরল, মানসিক সমস্যা, ওজন কমাতে চান,এমনকি যাদের ক্যান্সার হওয়ার আশঙ্কা বেশি তাহলে এই চা পান করতে পারেন। এমনকি এটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে কাজ করে।

যেভাবে বানাবেন হলুদ-আদার চা

• পানি- ১-২ কাপ

• হলুদ গুঁড়ো- ১-২ চা চামচ

• আদা গুঁড়ো- ১-২ চামচ

• দারুচিনি গুঁড়ো- সামান্য

• স্বাদ বাড়াতে মধু

• লেবুর রস

প্রণালি: প্রথমে সব উপাদান একত্রে মিশিয়ে অল্প আঁচে ১০ মিনিট ফোটাবেন। সব উপাদান ভালোভাবে মিশে গেলে চুলা থেকে নামিয়ে মধু অথবা লেবুর রসও মিশিয়ে খেতে পারেন।

এবার জেনে নিন হলুদ-আদা চায়ের উপকারিতা:

হার্ট ভাল রাখে: বেশির ভাগ সমীক্ষায় দেখা গেছে আদা এবং হলুদের মধ্যে রয়েছে বেশ কিছু উপকারিউপাদান, যা সঠিক রাখে কোলেস্টেরলের মাত্রা। ফলে ধমনীতে রক্তের প্রবাহ স্বাভাবিক রাখে। এর ফলে হার্টের সমস্যা দূর হয়।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়: প্রকৃতপক্ষে হলুদ এবং আদা-এই দুই উপকরণ জীবাণুনাশক এবং সংক্রমণবিরোধী হওয়ায় এটি আমাদের শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তোলে। এছাড়াও ঠাণ্ডা লাগা, সর্দি, কাশি, গলা ব্যাথার মতো সমস্যাগুলোকেও দূর করতে পারে।

ক্যান্সার প্রতিরোধ করে: অনেক পরীক্ষা নিরীক্ষার দ্বারা প্রমাণিত হয়েছে যে, আদা এবং হলু, ক্যান্সার প্রতিরোধ করতে সক্ষম। নানা ধরণের ক্যান্সারের উপসর্গ দূর করতে পারে। আদা। বিশেষ করে পেটের ক্যান্সার। অন্যদিকে হলুদও ক্যান্সার রোধে দারুণ কাজ করে।

ডায়াবেটিস রোধ করে: ডায়াবেটিস রোধ করতে দারুণ কাজ করে হলুদ-আদা চা । এই চা খেলে এর দুর্লভ উপাদান রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে। যার ফলে ডায়াবেটিস হওয়ার সম্ভাবনা দূর হয়। তার সাথে স্বাভাবিক রাখতে সাহায্য করে ইনসুলিন এবং গ্লকোজের মাত্রা।

হজমে সাহায্য করে: আদার মধ্যে প্রদাহ জনিত সমস্যা দূর করার মতো উপাদান রয়েছে, যা পেট ভাল রাখতে সাহায্য করে, এছাড়াও, বমিভাব দূর করতে পারে এবং হজম শক্তি বৃদ্ধি করে। এটি পেট ব্যাথা, পেট ফুলে যাওয়া, কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতেও দারুণ কাজ করে। হলুদ-আদা চা পেটের যে কোনও সমস্যা দূর করে, পেটের ভিতরে কোনোরকম ঘা হতে দেয় না, গ্যাস-অম্বল প্রভৃতি রোধ করতেও বিশেষ ভূমিকা পালন করে।

ব্যাথা নাশক হিসেবে কাজ করে: হলুদ-আদা মিশ্রিত চায়ের মধ্যে কারকিউমিন এবং জিঞ্জেরল নামক দুটি উপাদান থাকে, যা খুব সহজেই যে কোন ব্যাথা দূর করতে পারে। এছাড়াও এই দুই উপাদান হাঁটু, কনুই, কাঁধ, কোমর ইত্যাদির ব্যাথা দূর করে।

ওজন কমায়: হলুদে রয়েছে ওজন কমানোর যাবতীয় গুণাগুণ। শরীরে মেদ জমতে দেয় না আদা-হলুদ। খাবার হজম করতে সাহায্য করে। স্বাভাবিকভাবেই ওজন কমাতে সাহায্য করে।

ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়: ত্বকের যত্নে দারুণ কাজ করে হলুদ । ব্রণ, দাগ ছোপও দূর করে। ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে সাহায্য করে।হলুদ-আদা চায়ের মধ্যে জীবাণুনাশক উপাদান থাকায় এটি ত্বককে যে কোনও রকম সংক্রমণের হাত থেকে রক্ষা করতে পারে। এছাড়াও,ত্বক থেকে বয়সের ছাপ দূর করে এবং ত্বককে সজীব রাখে।

এসবি/এআইআর


  • 1
    Share