জানুয়ারি ১৮, ২০১৮ ৩:৪৩ পূর্বাহ্ণ

Home / slide / দুর্গাপুরে প্রাণ ভয়ে গ্রাম ছাড়া এক পরিবার

দুর্গাপুরে প্রাণ ভয়ে গ্রাম ছাড়া এক পরিবার

নিজস্ব প্রতিবেদক, দুর্গাপুর : দুর্গাপুরে পঞ্চম শ্রেনির এক স্কুল ছাত্রীকে উত্যাক্ত করার মামলা তুলে নিতে বাদির পরিবারকে প্রকাশ্য হুমকির অভিযোগ পাওয়া গেছে। এতে প্রান ভয়ে ১০দিন থেকে গ্রাম ছাড়া হয়েছে আছে ওই স্কুল ছাত্রীর পরিবার।

এ ঘটনার পর থানায় অভিযোগ দিতে গেলেও অভিযোগ না নেওয়ার অভিযোগ উঠছে। এরপর থেকেই মামলার আসামিরা আরও বেপরোয়া হয়ে মামলার বাদিকে প্রতিনিয়তই প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে যাচ্ছে। এতে ওই স্কুল ছাত্রীর বাবা জাহাঙ্গীর আলম, স্ত্রী রেহানা বেগমসহ দুই সন্তান নিয়ে গ্রাম ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছে ওই পরিবার।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ১৬ই মে উপজেলার কিসমত হোজার জাহাঙ্গীর আলমের পঞ্চম শ্রেনি পড়–য়া মেয়ে নানা বাড়ি থেকে বিকেল ৪টার দিকে বাড়ি ফিরছিলেন। এ সময় পানানগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পশ্চিম পাশের রাস্তায় একই গ্রামের মাহাবুর রহমানের ছেলে জনি তার পথ রোথ করে এবং খারাপ কথা বলে তাকে কু-প্রস্তাব দেয়।

এসময় স্কুল ছাত্রী তাকে এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে জনি তাকে জোরপূর্বক শ্লীলতাহানি করে। এ সময় মেয়েটির চিৎকারে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসলে জনিসহ তার সহযোগিরা পালিয়ে যায়। পরে ওই দিনই সন্ধ্যা বেলা জাঙ্গাহীর আলমের ছেলে জাকারিয়া হোসেন রনি নানির বাড়ি যাওয়ার পথে মামলার আসামিদের সাথে দেখা হয়।

এসময় তিনি ওই ঘটনার প্রতিবাদ করলে তারা জাকারিয়াকে বেধড়ক মারপিট করে। পরে ওই ঘটনায় স্কুল ছাত্রীর বাবা জাহাঙ্গীর আলম বাদি হয়ে দুর্গাপুর থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলা আসামিরা হলেন, কিসমত হোজা গ্রামের জনি, আবু হানিফ, আমরুল, জামাল, কাওসার, আন্টু ও মজিদ। মামলার দায়েরের পর থেকেই আসামিরা নানা ভাবে মামলা তুলে নিতে বাদিকে হুমকি দিয়ে আসছিল।

সম্প্রতি ওই মামলার প্রধান আসামি জনির পিতা মাহাবুর রহমান বিদেশে থেকে বাড়ি ফিরলে মামলার অন্য আসামিরাসহ তিনি মামলা তুলে নিতে আবারো প্রকাশ্য প্রাণ নাশের হুমকি প্রদান করে। এতে প্রাণ ভয়ে ১০দিন থেকে ওই স্কুল ছাত্রীর পরিবার গ্রাম ছেড়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন। এতে থানা পুলিশের সহযোগিতা চেয়েও পাননি বলে অভিযোগ করেছেন মামলার বাদি জাহাঙ্গীর আলম।

মামলার বাদি স্কুল ছাত্রীর পিতা জাহাঙ্গীর আলম অভিযোগ করে বলেন, মেয়ে এই ঘটনায় থানার মামলা দায়ের পর থেকে আসামিরা তাকে নানা ভাবে মামলা তুলে নিতে ভয়-ভীতি প্রদর্শণ করে আসছে। সম্প্রতি মামলার প্রধান আসামি জনির পিতা মাহাবুর রহমান দেশে আসলে আসামিরাসহ স্থানীয় লোকজনকে ভাড়া করে প্রকাশ্য বাড়িতে এসে প্রান-নাশের হুমকি দিচ্ছেন।

তিনি আরো বলেন, ১০দিন থেকে ৪সদস্যর পরিবার প্রাণ ভয়ে গ্রাম ছেড়ে পালিয়ে আছেন। ওই ঘটনায় থানায় জানানো হলেও তারা এ বিষয়ে কণপাত করছে না। ফলে পরিবার নিয়ে ১০দিন থেকে থেকে পালিয়ে বেড়াচ্ছি। খুব দ্রুত পরিবার নিয়ে বাড়িতে ফিরতে প্রসাশনের সু-দৃষ্টি কামণা করছেন বলে জানান তিনি।

জানতে চাইলে থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি রহুল আলম জানান, আসামির ভয়ে গ্রাম ছাড়া হয়েছেন বাদির পরিবার বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে ওই মামলার চার্জশীট দেওয়া হয়েছে। হুমকি ধামকির এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ হলে তদন্ত সাপেক্ষে বাদিকে আইনী সয়হায়তা দেওয়া হবে বলে জানান ওসি।

এসবি/এমএম/এসএস

Print Friendly, PDF & Email

Check Also

রাজশাহীতে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মেলার উদ্বোধন

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিকে জনপ্রিয় করা এবং বিভিন্ন নতুন উদ্ভাবনকে তুলে ধরার লক্ষ্যে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *