Ad Space

তাৎক্ষণিক

  • রাবির আবাসিক হলে এইচএসসির অমুল্যায়িত খাতা!– বিস্তারিত....
  • জাতীয় পার্টি রাজনীতিতে বড় ফ্যাক্টর : এরশাদ– বিস্তারিত....
  • নাটোরে বৈশাখী মেলায় প্রকাশ্যে জুয়া ও অশ্লীল নৃত্য– বিস্তারিত....
  • প্রাণ ও প্রকৃতির প্রতি সহিংসতার বিরুদ্ধে নগরীতে প্রকৃতি বন্ধন– বিস্তারিত....
  • রাবি শিক্ষার্থীকে মারধরকারী যুবলীগ নেতার শাস্তি দাবি– বিস্তারিত....

মা’কে কোপাতে দেখে বাবাকে কোপালো ছেলে

ফেব্রুয়ারি ১১, ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক : নাটোরে মা’কে কোপাতে দেখে বাবাকেও কুপিয়ে জখম করেছেন নয়ন হোসেন নামে এক ছেলে। শুক্রবার রাতে নাটোর সদর উপজেলার হরিশপুর ইউনিয়নের পাইকেরদোল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত অবস্থায় জাহাঙ্গীর হোসেন (৪৫) ও তার স্ত্রী হেলেনা খাতুনকে (৪০) রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহতদের স্বজনদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, শুক্রবার রাতে পারিবারিক বিষয় নিয়ে জাহাঙ্গীর হোসেনের সাথে তার স্ত্রী হেলেনা খাতুনের মধ্যে ঝগড়া বাঁধে। এর এক পর্যায়ে জাহাঙ্গীর ধারালো অস্ত্র দিয়ে স্ত্রী হেলেনাকে কুপিয়ে জখম করেন।

এ সময় ছেলে নয়ন তার মাকে রক্তাক্ত দেখে ক্ষুদ্ধ হয়ে বাবা জাহাঙ্গীরকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে পালিয়ে যান। জাহাঙ্গীরের হাত, পা, মাথা, পেটসহ শরীরের নানা অংশে জখম হয়েছে। হেলেনা খাতুনেরও হাত ও পায়ে জখম হয়েছে।

স্বজনরা আরও জানান, আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে নাটোর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে রাতেই তাদেরকে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তাদের অবস্থা এখনও শঙ্কটাপন্ন।

নাটোর সদর থানার ওসি মশিউর রহমান জানান, ঘটনার পর থেকে আহতদের ছেলে নয়ন হোসেন পলাতক রয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তবে এ বিষয়ে গতরাত ১০টা পর্যন্ত থানায় কেউ কোনো অভিযোগ করেনি।