Ad Space

তাৎক্ষণিক

ফিলিস্তিনের প্রতি সমর্থন পুনর্ব্যক্ত করেছে বাংলাদেশ

ফেব্রুয়ারি ২, ২০১৭

সাহেব-বাজার ডেস্ক : ফিলিস্তিন ও ফিলিস্তিনের জনগণের প্রতি চিরন্তন সমর্থন পুনর্ব্যক্ত করেছে বাংলাদেশ। আজ বৃহস্পতিবার (২ ফেব্রুয়ারি) ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মধ্যে অনুষ্ঠিত বৈঠকে বাংলাদেশ এ বার্তা দেয়। বৈঠকের পরে পররাষ্ট্র সচিব এম শহীদুল হক সাংবাদিকদের বলেন, ‘আজকের (বৃহস্পতিবার) বৈঠকে একটি আন্তঃসরকার কমিটি গঠন করা হয়েছে এবং রেগুলার ভিত্তিতে দু’দেশের পররাষ্ট্র সচিব পর্যায়ের বৈঠক হবে।’

তিনি বলেন, ‘ফিলিস্তিন এখন কঠিন সময় পার করছে এবং আমরা ইসরায়েলের আগ্রাসনকে নিন্দা জানিয়েছি ।’ বাংলাদেশ দু’দেশ তত্ত্বকে সমর্থন করে এবং এর মাধ্যমে ফিলিস্তিন ও ইসরায়েল দুটি দেশ হবে। বৈঠকে আব্বাস বাংলাদেশের এ অবস্থানের জন্য ধন্যবাদ জানান।

পররাষ্ট্র সচিব বলেন, ‘আব্বাস আমাদের জানিয়েছেন, তারা শান্তির্পূণভাবে আলোচনার মাধ্যমে ফিলিস্তিন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করতে চান এবং এর জন্য বাংলাদেশের সমর্থন প্রত্যাশা করেন।’
তিনি আরও বলেন, ‘এছাড়া ফিলিস্তিনদের জন্য বাংলাদেশ যে স্কলারশিপ দেয়, তার জন্য আব্বাস ধন্যবাদ জানিয়েছেন।’

উল্লেখ্য, ফিলিস্তিন প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস বুধবার তিন দিনের সফরে ঢাকা এসেছেন। প্রেসিডেন্ট আবদুল হামিদ তাকে বিমানবন্দরে স্বাগত জানান। এর আগে শাহজালাল বিমানবন্দরে দুবার যাত্রাবিরতি করলেও এটি মাহমুদ আব্বাসের বাংলাদেশে প্রথম রাষ্ট্রীয় সফর। বৃহস্পতিবার দুপুরে সাভার স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা নিবেদন ও বঙ্গবন্ধু জাদুঘর পরিদর্শনের পর বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে আনুষ্ঠানিকভাবে বৈঠক করেন মাহমুদ আব্বাস । রাতে আব্বাসের সম্মানে বঙ্গভবনে আয়োজিত এক রাষ্ট্রীয় নৈশভোজে তিনি অংশগ্রহণ করবেন।

শুক্রবার সকালে বিরোধীদলীয় নেত্রী রওশন এরশাদ তার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন। এদিন দুপুরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী তাকে বিমানবন্দরে বিদায় জানাবেন।

প্রসঙ্গত, এর আগে প্যালেস্টাইন লিবারেশন অর্গানাইজেশনের (পিএলও) প্রধান হিসাবে ইয়াসির আরাফাত একাধিকবার বাংলাদেশ সফর করেছেন। তিনি সর্বশেষ ১৯৯৭ সালে বাংলাদেশ সফর করেন। বাংলাদেশ সবসময় ফিলিস্তিন রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার পক্ষে আছে।