ডিসেম্বর ১১, ২০১৭ ৭:১৫ অপরাহ্ণ

Home / slide / দুর্গাপুরে গৃহবধুকে ধর্ষণের চেষ্টা, আদালতে মামলা দায়ের

দুর্গাপুরে গৃহবধুকে ধর্ষণের চেষ্টা, আদালতে মামলা দায়ের

নিজস্ব প্রতিবেদক, দুর্গাপুর : রাজশাহীর দুর্গাপুর উপজেলার নওপাড়া গ্রামে এক গৃহবধুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বিষয়টি স্থানীয় ভাবে আপোষের চেষ্টা চালানো হলেও শেষ পর্যন্ত এ ঘটনায় রাজশাহীর আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। ভিকটিম নারী নিজেই বাদী হয়ে রাজশাহীর বিজ্ঞ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-২ এ মামলাটি দায়ের করেছেন। আদালতের বিজ্ঞ বিচারক মামলাটি আমলে নিয়ে উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তাকে তদন্ত করে আদালতে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার নওপাড়া গ্রামের শারীরিক প্রতিবন্ধী সামছুল হকের স্ত্রী আকলিমা বেগমকে (৪২) মাঝে মধ্যেই কু প্রস্তাব দিতেন প্রতিবেশী সেকেন্দার আলীর লম্পট পুত্র কাউছার আলী (৩৫)। বিষয়টি ভিকটিম নারী তার স্বামীকে জানালে কাউছার আলীকে শাসানো হলে কিছুদিন ভালো থাকার পর আবারো একই কাজ করতে থাকে। ঘটনার দিন গত ৩০ ডিসেম্বর রাত ১০ টার দিকে বাড়ির সকলের অগোচরে ভিকটিমের বড় ছেলের ঘরে প্রবেশ করে লম্পট কাউছার আলী। পাশের ঘরেই ভিকটিমের স্বামী শুয়ে ছিল। বড় ছেলে ওই রাতে বাড়িতে না থাকায় ভিকটিম তার ছেলের ঘরেই শুয়ে ছিল। এ সময় কাউছার আলী ভিকটিমের ঘরে প্রবেশ করে তার মুখ মাফলার দিয়ে বেঁধে তাকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এ সময় ভিকটিম নারী ও তার স্বামীর চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে পরনের কাপড় চোপড় ফেলে ঘটনাস্থল থেকে পালিয় যায় কাউছার আলী।

এ ঘটনায় গ্রাম্য সালিশে আপোষের চেষ্টা চালানো হলেও প্রভাবশালী কাউছারের হুমকি-ধামকীতে তা ভেস্তে যায়। বাধ্য হয়ে গত ২ জানুয়ারী ভিকটিম নারী থানায় অভিযোগ নিয়ে গেলে তাকে আদালতে মামলা করার পরামর্শ দেয় পুলিশ।

অবশেষে এ ঘটনায় ভিকটিম নারী নিজেই বাদী হয়ে লম্পট কাউছার আলীকে আসামী করে গত ৮ জানুয়ারী রাজশাহীর বিজ্ঞ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-২ এ মামলা দায়ের করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email

Check Also

রাজশাহীতে ১৫টি সোনার বারসহ পাচারকারী আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহীতে ১৫টি সোনার বারসহ এক পাচারকারীকে আটক করা হয়েছে। আটক ব্যক্তির নাম …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *