Ad Space

তাৎক্ষণিক

মোহনপুরে দুম্বার মাংস কম, ক্ষোভ চেয়ারম্যানদের

জানুয়ারি ৪, ২০১৭

মোহনপুর প্রতিনিধি : রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার অসহায়, দুস্থ ও এতিমদের মাঝে বিতরণের জন্য ত্রাণ ও দূর্যোগ মন্ত্রণালয় থেকে আসা দুম্বার ১০ কেজি করে আসা ৬৪ টি কার্টুনে পাওয়া গেছে মাত্র ১ থেকে দেড় কেজি। দুম্বার মাংস কম থাকায় ক্ষোভ দেখা দিয়েছে জনপ্রতিনিধি ও মাংসভোগীদের।

জানা গেছে, মোহনপুরের ৬টি ইউনিয়ন ও ১টি পৌরসভার জন্য ত্রাণ ও দূর্যোগ মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সৌদি আরব থেকে দুম্বার ৬৪ কার্টুন মাংস আসে মোহনপুর প্রকল্প বাস্তবায়ন কার্যালয়ে। উপজেলা চেয়ারম্যানদের মাধ্যমে অসহায়, দুস্থ ও এতিমদের বিতরণের জন্য বুধবার সন্ধ্যা ৬ টায় উপজেলা চত্ত্বরে প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা বিপুল কুমার মালাকার উপস্থিত থেকে কার্টুনগুলো গ্রহণ করেন। চেয়ারম্যানরা সেই দুম্বার মাংসের কার্টুন ও হাফিজিয়া মাদরাসা ও এতিমখানার প্রতিনিধিদের দেন। কিন্তু এতিমখানা ও হাফিজিয়া মাদরাসার প্রতিনিধিরা বিতরণকৃত খোলা কার্টুনের মধ্যে দেখেন কার্টুনে ১ কেজি হতে দেড় কেজি মাংস আছে। কার্টুনে মাংস কম থাকায় ক্ষোভে অনেকেই মাংসের কার্টুন ফেরত অল্প মাংস নিতে নারাজ হয়ে চলে যায়।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক প্রতিনিধি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, দেখতে বড় কার্টুন হলেও ভিতরে একেবারেই সামান্য মাংস ছিলো। এই সামান্য মাংস দিয়ে আমাদের এতিমখানায় সব এতিমদের একবেলা খাওয়া হবে না।

মাংস কম থাকার কথা জানতে চাইলে ধূরইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কাজিম উদ্দিন বলেন,  দীর্ঘদিন থেকে আমি জনপ্রতিনিধি দায়িত্ব পালন করছি কিন্তু এ বছর মাংসের কার্টুন ছিল খোলা এবং প্রত্যেক কার্টুনের মাংসের পরিমাণ ছিল খুবই কম।

মৌগাছি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আল আমিন বিশ্বাস সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, কার্টুন ছিল খোলা, কার্টুনে মাংস পরিমান ছিল খুবই সামান্য। এই সামান্য মাংস কিভাবে  বিতরণ করব বুঝতে পারছিনা।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা বিপুল কুমার মালাকার বলেন, আমি সবার উপস্থিতিতে দুম্বার মাংস ট্রাক হতে গ্রহণ করেছি।

জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন  কর্মকর্তা  আলাউদ্দিনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমি ছুটিতে আসি আর দুম্বার মাংস ব্যাপারে ইসলামী ব্যাংক  দেখভাল করে।

জেলা প্রশাসক কাজী আশরাফ উদ্দিনের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, এটা খুবই দুঃখজনক বিষয় আমি নির্বাহী কর্মকর্তাকে লিখিতভাবে অভিযোগ নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছি। এটা ইসলামী ব্যাংক গ্রহন করে গুদামজাত করেন। নামে মাত্র প্যাকেট থাকবে মাংস থাকবে না এটা হতে পারে না।