নভেম্বর ২৩, ২০১৭ ১:১৮ অপরাহ্ণ

Home / slide / লিটন হত্যা সাম্প্রদায়িক অপশক্তির কাজ বললেন ওবায়দুল কাদের
লিটন হত্যা সাম্প্রদায়িক অপশক্তির কাজ বললেন ওবায়দুল কাদের
লিটন হত্যা সাম্প্রদায়িক অপশক্তির কাজ বললেন ওবায়দুল কাদের

লিটন হত্যা সাম্প্রদায়িক অপশক্তির কাজ বললেন ওবায়দুল কাদের

সাহেব-বাজার ডেস্ক : সাংসদ মঞ্জুরুল ইসলাম লিটনের হত্যাকাণ্ডের পেছনে সাম্প্রদায়িক অপশক্তির হাত রয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।
রোববার দুপুরে ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে সম্পাদকমণ্ডলীর বৈঠক শেষে এক সংবাদ সম্মেলন করে তিনি এই প্রতিক্রিয়া তুলে ধরেন।
ওবায়দুল কাদের বলেন, গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জের এমপি মঞ্জুরুল ইসলাম লিটনকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে প্রতীয়মান হয়, এটা সাম্প্রদায়িক অপশক্তির কাপুরুষোচিত কাজ। ধর্মীয় মৌলবাদী অপশক্তিকে এই কৃত অপরাধের জন্য চরম মূল্য দিতে হবে।
সাংসদ লিটনকে হত্যাকাণ্ডকে পরিকল্পিত আখ্যা দিয়ে সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী বলেন, সারা বাংলাদেশের মানুষ যখন বর্ষবরণের আনন্দ-উৎসবে, ঠিক সেই মুহূর্তে এটা বর্বোরোচিত আক্রমণ।
শনিবার সন্ধ্যায় সুন্দরগঞ্জ উপজেলার সর্বানন্দ ইউনিয়নের শাহবাজ গ্রামে নিজের বাড়িতে হামলার শিকার হন আওয়ামী লীগ নেতা লিটন।
মাগরিবের নামাজের পরপর মোটরসাইকেলে করে এসে অজ্ঞাতপরিচয় তিন যুবক বাড়িতে ঢুকে গুলি করে চলে যায় বলে জানিয়েছেন সাংসদের স্ত্রী সৈয়দা খুরশিদ জাহান স্মৃতি।
আশঙ্কাজনক অবস্থায় লিটনকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলেও তাকে বাঁচানো যায়নি। তার বুকের বাঁ দিকে দুটো এবং বাঁ হাতে একটি গুলি লেগেছিল বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।
সংবাদ সম্মেলনে খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক জেড এ মাহমুদ ডনের ওপর হামলার নিন্দা জানান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।
আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, এনামুল হক শামীম, মহিবুল হাসান চৌধুরী, দপ্তর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুদীপ রায় নন্দী ও বন ও পরিবেশ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন এসময় উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email

Check Also

৪৬ বছর পর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার জলঢাকায়

সাহেব-বাজার ডেস্ক : স্বাধীনতার ৪৬ বছর ধরে নীলফামারীর জলঢাকা উপজেলার প্রায় পাঁচ লক্ষাধিক মানুষ শহীদদের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *