Ad Space

তাৎক্ষণিক

জীবনের কথা ভেবে গাড়ি চালান : আরএমপি কমিশনার

নভেম্বর ৩০, ২০১৬

নিজস্ব প্রতিবেদক : চালকদের উদ্দেশ্যে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) কমিশনার শফিকুল ইসলাম বলেছেন, ‘সময়ের চেয়ে মানুষের জীবনের মূল্য অনেক বেশি। তাই জীবনের কথা ভেবে গাড়ি চালান। একটি দুর্ঘটনা ঘটলে তাতে শুধু যাত্রীদেরই প্রাণহানির আশঙ্কা নেই, প্রাণহানি ঘটতে পারে চালকেরও। তাই সুস্থ্যভাবে গাড়ি চালান।’

বুধবার বিকেলে নগরীর শিরোইল পুরাতন বাস টার্মিনালে ‘ট্রাফিক আইন মেনে চলুন, দূর্ঘটনা মুক্ত সমাজ গঠনে অবদান রাখুন’ শীর্ষক সড়ক দুর্ঘটনা প্রতিরোধ ট্রাফিক সচেতনতা ও প্রচারণামূলক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘আমরা শুনেছি, ড্রাইভার ভাইয়েরা গাড়ি চালিয়ে ক্লান্ত হয়ে পড়লে নেশাজাতীয় কিছু খান। এতে নাকি তাদের ক্লান্তি দূর হয়। মনে ফুর্তি আসে। কিন্ত এটা করা উচিৎ নয়। গাড়ির স্টিয়ারিং ধরলে পরিবারের কথা চিন্তা করুন, গাড়ির প্রতিটি যাত্রীর কথা চিন্তা করে সকল নেশাজাতীয় দ্রব্য গ্রহণ করা থেকে বিরত থাকুন।’

রাজশাহী জেলা মোটর শ্রমিক ইউনিয়ন, রাজশাহী জেলা ট্রাক ও ট্যাংক লরি, কাভার্ড ভ্যান শ্রমিক ইউনিয়ন, রাজশাহী সড়ক পরিবহণ গ্রুপ, রাজশাহী জেলা ট্রাক ও কার্ভাড ভ্যান শ্রমিক ইউনিয়ন, রাজশাহী সড়ক পরিবহণ গ্রুপ, রাজশাহী জেলা ট্রাক ও কার্ভাড ভ্যান মালিক সমিতি ও রাজশাহী জেলা ট্যাংক মালিক গ্রুপ যৌথভাবে এ সভার আয়োজন করে। সভায় সভাপতিত্ব করেন আরএমপির উপ-কমিশনার (ট্রাফিক) তোফায়েল আহাম্মেদ।

সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, রাজশাহী সিটি করপোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়র নিযাম-উল-আযীম, রাজশাহী সড়ক পরিবহণ গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক মাহাতাব হোসেন চৌধুরী, রাজশাহী জেলা ট্রাক ও কার্ভাড ভ্যান মালিক সমিতির সভাপতি আবুল কালাম, জেলা ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি সাইদুল ইসলাম, নগর যুবলীগের সভাপতি রমজান আলী প্রমুখ।

অনুষ্ঠানের শুরুতে পুলিশ কমিশনার শফিকুল ইসলামকে বিভিন্ন পরিবহণ শ্রমিক সংগঠনের পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়। আর নগর পুলিশের পক্ষ থেকে পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে ট্রাফিক আইন সম্পর্কে সকলকে অবহিত করা হয়। এ সময় পরিবহন শ্রমিকদের মধ্যে ট্রাফিক আইন সংক্রান্ত লিফলেটও বিতরণ করা হয়।