Ad Space

তাৎক্ষণিক

বাঘায় চাঁদা দিতে না চাওযায় বিদ্যালয়ের সভাপতিকে মারপিট

নভেম্বর ১৭, ২০১৬

নিজস্ব প্রতিবেদক, বাঘা : রাজশাহীর বাঘায় চাঁদা না পেয়ে এক স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সভাপতিকে বেধড়ক মারপিট করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় হামলাকারিদের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করেছেন ভূক্তভুগী ফজলুল হক। তাঁকে  স্থানীয় বাঘা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, গত সোমবার উপজেলার হরিরামপুর বাজার মসজিদে মাগরিবের নামাজ শেষে ওই বাজারের মোকারম মাষ্টারের ঔষধের দোকানে বসে ছিলেন উপজেলার মীরগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও রাওথা কলেজের ক্রীড়া শিক্ষক ফজলুল হক।

এমতাবস্থায় পার্শ্ববর্তী হেলালপুর গ্রামের আছেদ মোল্লার ছেলে কালাম মোল্লা, সামাদ মোল্লা, হেলালপুর গ্রামের নজরুলের ছেলে রুবেল, আলাইপুর গ্রামের মহসিনের ছেলে আব্দুল বারি, ভানুকর গ্রামের আজিজের ছেলে কাজিম, রশিদের ছেলে আনিছুর, চারঘাট থানার রাওথা গ্রামের ওহাবের ছেলে ফজলু-সহ অগ্যাত নামা আরো ১০-১২ জন  তাঁর কাছে গিয়ে নগদ ৬ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করেন।

এ সময় তিনি চাঁদা দিতে অস্বিকার করলে, পরক্ষনে তারা এলাপাথাড়ি মারপিট শুরু করে এবং তার কাছে থাকা মোবাইলটি সিনিয়ে নেয়। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করেন।

তবে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে মারপিট করার ঘটনা সঠিক হলেও চাঁদা দাবির বিষয়টি সঠিক নয় বলে দাবি করেছেন প্রতিপক্ষরা।

বাঘা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলী মাহমুদ জানান, অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।