Ad Space

তাৎক্ষণিক

রাবিতে ছাত্রলীগকর্মীকে মারধর

নভেম্বর ৪, ২০১৬

রাবি প্রতিবেদক  : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) তৌহিদুর রহমান পিয়েল নামের এক ছাত্রলীগ কর্মীকে বেধড়ক মারধর করেছে দুবৃত্তরা। শুক্রবার রাত সাড়ে আটটার বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টেশন বাজারে এই ঘটনা ঘটে।

পিয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ও আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আমিরুল ইসলাম মিলনের ছেলে। তাকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ৩৯ নম্বর ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়েছে।

ছাত্রলীগ সূত্রে জানা যায়, পিয়েল শুক্রবার রাতে স্টেশন বাজারের একটি হোটেল থেকে রাতের খাবার খেয়ে বের হচ্ছিলেন। এ সময় ২০-২৫ জন দুর্বৃত্ত তাকে পার্শ্ববর্তী এক গলিতে ডেকে নিয়ে যায়। এরপর তারা তার পরিচয় নিশ্চিত হয়ে রড দিয়ে বেধড়ক মারধর করে পালিয়ে যায়। জখম অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসাকেন্দ্রে নিয়ে যায়। অবস্থা গুরুতর হওয়ায় পরে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

পিয়েলের বরাত দিয়ে তার বন্ধুরা জানান, পিয়েলকে মারধরকারীরা স্থানীয় ভাষায় কথা বলছিল। তাদের কথার ধরণে মনে হয়েছে তারা স্থানীয় বখাটে। পিয়েলের সঙ্গে কারো কোন শত্রুতাও নেই। কী উদ্দেশ্যে তাকে মারধর করা হলো তাও স্পষ্ট না।

রাবি শাখা ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি রাশেদুল ইসলাম রাঞ্জু বলেন, ছাত্রলীগ কর্মীর ওপর বর্বরোচিত এ হামলার প্রতিবাদে আগামী (শনিবার) বিক্ষোভ মিছিল করা হবে। আমরা পুলিশ প্রশাসনের সাথে কথা বলেছি। তারা ইতোমধ্যে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক মুজিবুল হক আজাদ বলেন, বিষয়টি সাংবাদিকদের কাছ থেকে শুনলাম। এ ব্যাপারে খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ ব্যাপারে বক্তব্য জানতে নগরীর মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হুমায়ুন কবিরের সাথে মুঠোফোনে কয়েকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তিনি ফোন ধরেননি।