Ad Space

তাৎক্ষণিক

  • রাসিকের বর্ধিত ট্যাক্স বাতিলের দাবিতে হরতালের ডাক– বিস্তারিত....
  • রোহিঙ্গা সংকটের জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে দুষলেন সু চি– বিস্তারিত....
  • লক্ষ্মীপুরে ভাটা শ্রমিকের লাশ উদ্ধার– বিস্তারিত....
  • ব্রিটিশ পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং হাসপাতালে– বিস্তারিত....
  • ফেসবুক ও টুইটারে শাহরুখের পারিবারিক ছবি– বিস্তারিত....

গানে গানে লিপু হত্যার বিচার দাবি

অক্টোবর ৩১, ২০১৬

রাবি প্রতিবেদক : হলের ভেতর লিপু মরলো, প্রশাসনের ঘুম না ভাঙ্গলো, দিনের পরে দিন চলে যায়, বিচার মিলে না, লিপুর কথা মনে হলে ঘুম না আসে দুই নয়নে,- এমন সব শিহরণ জাগানো গানের মধ্যে দিয়ে লিপু হত্যার বিচার দাবিতে গণসংগীত পরিবেশন করেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

সোমবার সকাল সাড়ে ১১টা থেকে বিভাগের সামনের ‘লিপু চত্বরে’ এ কর্মসূচি পালিত হয়।

এসময় বিভাগের শিক্ষার্থীরা লিপু হত্যাকা-ের কোন অগ্রগতি না হওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন। তারা বলেন, ঘটনার ১১ দিন পেরিয়ে গেলেও কারা হত্যা করলো তা জানা যায় নি। বিভাগের আল্টিমেটাম শেষ হয়েছে। খুব দ্রুত বিচার সম্পন্ন না হলে আমরা কঠোর আন্দোলনে যেতে বাধ্য হবো।

এসময় দলীয় প্রতিবাদী কণ্ঠের গানে আকাশ বাতাস ভারী হয়ে ওঠে। ক্যাম্পাসের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষার্থী এ কর্মসূচির সঙ্গে একাত্মতা ঘোষণা করে বিচার দাবি করেন। ব্যতিক্রমধর্মী এ প্রতিবাদ কর্মসূচির বিষয়ে জানতে চাইলে বিভাগের ১ম বর্ষের হারুন-অর-রশিদ বলেন, প্রতিবাদের ভাষা সব সময় এক হয় না। ভিন্ন ভাবেও প্রতিবাদ করা যায়। প্রতিবাদী গান এর মধ্যে অন্যতম। ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে স্বাধীনতা আন্দোলন পর্যন্ত  বাঙ্গালি চেতনা জাগ্রত করার জন্য বড় ভূমিকা পালন করেছিলো এই প্রতিবাদী গান। আমরা মনে করি, এই গান বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল শিক্ষার্থীর মধ্যে চেতনা জাগ্রত করবে। নিজেদের নিরাপত্তার জন্য তারা আমাদের আন্দোলনের সঙ্গে এসে যুক্ত হয়ে সব অন্যায়ের বিরুদ্ধে কথা বলবে। লিপুর মতো আর কাউকে মরে ড্রেনে পড়ে থাকতে হবে না।

গত ২০ অক্টোবর নবাব আব্দুল লতিফ হলের ড্রেন থেকে মোতালেব হোসেন লিপুর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে ওইদিন বিকেলে লিপুর চাচা বাদী হয়ে নগরীর মতিহার থানায় অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ মামলায় লিপুর রুমমেট মনিরুল ইসলামকে গ্রেফতার দেখানো হয়। গত ২৬ অক্টোবর মনিরুলকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য চারদিনের রিমান্ডে নেয়া হয়।