Ad Space

তাৎক্ষণিক

মোহনপুরে কলেজছাত্র খুন

অক্টোবর ৩০, ২০১৬

নিজস্ব প্রতিবেদক, মোহনপুর : মোহনপুর উপজেলার ধূরইল ইউনিয়নে জমিজমা সক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষর মারপিটে এক কলেজছাত্র নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় নারীসহ আরও তিন জন আহত হয়েছেন।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, গত শুক্রবার উপজেলা ধূরইল ইউনিয়নে ধূরইল হাটপাড়া গ্রামের মাদরাসার পূর্ব পাশে মজিবর রহমানের দাবীকৃত ১৫ শতক ভিটা জমিতে শুক্রবার রাতে টিন চালা দিয়ে ঘর নির্মাণ করেন। জমি-জমার সক্রান্ত পূর্ব শত্রুতার জের একই গ্রামের প্রতিপক্ষ শুক্রবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে আহম্মেদ ছেলে জাফর (৫৫) আন্টু , মন্টু, আন্টুর ছেলে আশরাফুল, মন্টুর ছেলে বাবু, আরমান আলীর ছেলে আমিনুল (৫০) ও আতাউর রহমান (৪৮) তার সন্ত্রাসী বাহিনী হাতে হাসুয়া লাঠি, বল্লম, রামদা মজিবর রহমানের টিন দিয়ে নির্মানকৃত ঘর প্রবেশ করে টিনের ঘর ভেঙ্গে পাশে পুকুরে ফেলে দেয়।

জানতে পেয়ে মজিরবর ও তার স্ত্রী সমাপ্ত বানু, ছেলে রাজশাহী সিটি কলেজের পড়ুয়া একাদশ শ্রেনীর ছাত্র শাকিল আহম্মেদ (১৭), শাকিলের ফুফু জান্নাতুন ফেরদৌস সাথে নিয়ে বাধা দিতে গেলে আতাউর সন্ত্রাসী বাহিনী মজিবর রহমান ও তার পরিবার লোকদের বেধরক মারপিট করে রক্তাক্ত জখম করে।

তাদের ডাক চিৎকারে আশেপাশের লোক আশংষ্কাজনক অবস্থায় তাদেরকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতোলে ২৮ নম্বর ওয়ার্ডে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করে।

চিকিৎসারত অবস্থায় গতকাল শনিবার বেলা ১১টার দিকে শাকিলের মৃত্যু হয়। শাকিল আহম্মেদের মৃত্যু সংবাদ এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে এলাকাবাসী আতাউর রহমানকে আটক করে পুলিশের হাতে সোর্পদ করে। এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত মামলা দায়েরের প্রস্তুত্তি চলছিল।

এ বিষয়ে মোহনপুর থানার অফিসার ইনর্চাজ (ওসি) এসএম মাসুদ পারভেজ বলেন, অভিযুক্তদের আটকের জন্য অভিযান অব্যহত রয়েছে।