ডিসেম্বর ১৬, ২০১৭ ৩:৩৬ পূর্বাহ্ণ

Home / slide / ওবামা দম্পতির শেষ সংগীত সন্ধ্যা

ওবামা দম্পতির শেষ সংগীত সন্ধ্যা

সাহেব-বাজার ডেস্ক : আর মাত্র কয়েকদিন পরই মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। নির্বাচনের পরেই নতুন প্রেসিডেন্টের হাতে চলে যাবে হোয়াইট হাউজের চাবি। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান প্রেসিডেন্টের দায়িত্বপালনকারী বারাক ওবামার এখানেই কেটেছে দশটি বছর। কারণ ওবামা দুই মেয়াদে মার্কিন প্রেসিডেন্টের দ্বায়িত্ব পালন করেছেন। দশ বছর সময়টা নেহাতই কম নয়। তাইতো হোয়াইট হাউজের প্রত্যেকটি ইট-কাঠ-পাথরের সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে ওবামা দম্পতির স্মৃতি।

অনেক স্মৃতি নিয়ে ওবামা পরিবার যে হোয়াইট হাউজ ছাড়বে এতে কোন সন্দেহ নেই। এসব স্মৃতির ভেতর থাকবে বিশেষ করে মিউজিকাল নাইট। নিয়ম করে হোয়াইট হাউজে বসত সংগীতের আসর। টানা আট বছর। হোয়াইট হাউজে গান-বাজনার ঐতিহ্য বরাবরই রয়েছে। সেই ঐতিহ্যকে আট বছর ধরে লালন করেছেন ওবামা-মিশেল দম্পতি। দুজনই যে গানপাগল! ক্লাসিক, কান্ট্রি, ব্লুজ, ব্রডওয়ে, গসপেল, মোটাউন, ল্যাটিন, জ্যাজ বাদ ছিল না কিছুই। সংগীতের মূর্চ্ছনায় মেতে উঠত গোটা হোয়াইট হাউজ।

গত শুক্রবার শেষবারের মতো হোয়াইট হাউজে সংগীতের আসর বসিয়েছিলেন বারাক ওবামা। হোয়াইট হাউজের দক্ষিণের লনে রীতিমতো তাঁবু টানিয়ে আসর বসানো হয়েছিল এই আসর। জলি স্কটের ‘রান-রান -রান’ দিয়ে শুরু হলেও একে একে মঞ্চ মাতালেন ইয়োলান্ডা অ্যাডামস, আশার, দ্য রুটস, বেল বিভ দ্যভো, জ্যানেল মোনে, দ্য লা সোল, মিশেল উইলিয়ামসরা। প্রথম দর্শক সারিতে বসে সন্ধ্যাটি উপভোগ করতে দেখা গেল বারাক-মিশেলকে।

হোয়াইট হাউজের এই সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা যে ওবামার হৃদয়ের বড় কাছের, সে কথা ওবামা নিজেই জানালেন। মজা করে ওবামা বলেন, ‘আমেরিকার প্রেসিডেন্ট হওয়ার কয়েকটা সুবিধা আছে। আপনি এয়ার ফোর্স ওয়ান, মেরিন ওয়ান চড়তে পারবেন। আবার আপনার অনুরোধ কোনো তারকা ফেলতে পারবে না। শুধু ফোন করে বলতে হবে, হোয়াইট হাউজে আসর আছে, দেখবেন সে তারকা যত বড়ই হোক, ঠিকই চলে আসবেন।’

প্রত্যেক বছর ওবামার ডাকে হোয়াইট হাউজে এসেছেন সদ্য সাহিত্যে নোবেলজয়ী গায়ক বব ডিলান থেকে শুরু করে জেনিফার হাডসন, লস লোবোস, পল ম্যাককার্টনি, মিক জ্যাগাররাও এসেছিলেন ওবামার আসরে। হোয়াইট হাউজের এই দিনগুলো যে খুব মিস করবেন তা গোপন করেননি ওবামা। হোয়াইট হাউজের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যকে সুন্দরভাবে লালন করেছেন তিনি।

Print Friendly, PDF & Email

Check Also

‘মঙ্গলের শহর’ বানাচ্ছে দুবাই

সাহেব-বাজার ডেস্ক : মহাকাশ বিজ্ঞান নিয়ে গবেষণায় মার্কিন সংস্থা নাসা যেখানে পৌঁছেছে সেখানে পৌঁছানোর কল্পনাও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *