বিকাল ৫:৫১ বুধবার ১৩ নভেম্বর, ২০১৯


বাঘায় পুলিশের টের পেয়ে পালালো জামায়াত-শিবির ,পাকিস্তানী পতাকা জব্দ

নিউজ ডেস্ক | সাহেব-বাজার২৪.কম
আপডেট : নভেম্বর ৮, ২০১৯ , ৭:৪৫ অপরাহ্ণ
ক্যাটাগরি : রাজশাহীর সংবাদ
পোস্টটি শেয়ার করুন

বাঘা প্রতিনিধি : রাজশাহীর বাঘায় শিবির নেতার বাড়ি থেকে আবু সাইদ আল মওদুদীর লেখা জিহাদের হাকিকত, গোলাম আযমের ইকামাতে দ্বীন, মতিউর রহমান নিজামীর লেখা ইসলামী আন্দোলনের পথ ও পাথেয় নামীয় ও জামায়াতে ইসলামীর রাজনৈতিক ভুমিকা নামীয় বইসহ একাধিক বই, কুপন ও পাকিস্তানী পতাকা জব্দ করেছে পুলিশ।

নিষিদ্ধ রানৈতিক দল জামায়াতে ইসলামীর অঙ্গ সংগঠন শিবিরের সাবেক সভাপতি আইয়ুব আলীর উপজেলার আমোদপুর গ্রামের বাড়ি থেকে এগুলো জব্দ করে পুলিশ। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ওই বাড়ি থেকে পালিয়ে যায় সংগঠনটির নেতা-কর্মীরা। পরে ওই বাড়ির দুই নারীকে থানায় এনে জিজ্ঞাসাবাদের পর ছেড়ে দেওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

শুক্রবার (৮-১১-১৯) এসআই সইবুর রহমান বাদি হয়ে ১১জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরো ১৬জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার (৭-১১-১৯) রাত আনমানিক সাড়ে ৬টার দিকে ওই বাড়িতে ১৫/২০জন সরকার বিরোধী আন্দোলনের গোপন বৈঠক করছিল। গোপন সংবাদ সুত্রে সেখানে অভিযান চালানো হয়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে তাৎক্ষণিক সটকে পড়ে নিষিদ্ধ রাজনৈতিক দল জামায়াত-শিবির নেতা-কর্মীরা। পরে আইয়ুব আলীর বাড়ি তল্লাশি করে তার ঘর থেকে ইসলামী ছাত্র শিবিরের কর্মপরিকল্পনা লিফলেট, চাঁদা আদায় রশিদ বই, ছাত্র শিবিরের প্রকাশন বিভাগ অনুকুলের ক্যাশ খরচ ভাউচার, মাসিক পরিকল্পনা ডায়রি ও জামায়াত শিবিরে যোগাযোগে ব্যবহৃত অ্যান্ড্রোয়েড মোবাইল ফোনসহ বিভিন্ন প্রকার শতাধিক বই ও পাকিস্তানী পতাকা জব্দ করা হয়।

বাঘা উপজেলা ছাত্র শিবিরের সাবেক সভাপতি আইয়ুব আলী, রাজশাহী জেলা ছাত্র শিবিরের আরডি বলে জানা গেছে। সে উপজেলার আমোদপুর গ্রামের মৃত আজগর আলীর ছেলে। এ বিষয়ে জানতে চেয়ে সংগঠনটির উপজেলা আমির আব্দুল নুহু ও ছাত্র শিবিরের সভাপতি দুর্জয় আলম সবুজ এর সাথে যোগাযোগ করে তাদের পাওয়া যায়নি।

অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) আতিকুর রেজা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, পলাতক আসামীদের গ্রেফতার অভিযান অব্যাহত রয়েছে। জিজ্ঞাবাদের জন্য দুই নারীকে থানায় নেয়া হয়েছিল।

এসবি/এএলএম/জেআর