রাত ১২:০১ বুধবার ১৩ নভেম্বর, ২০১৯


গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত থাকুক: প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক | সাহেব-বাজার২৪.কম
আপডেট : নভেম্বর ২, ২০১৮ , ১০:১১ অপরাহ্ণ
ক্যাটাগরি : জাতীয়,শীর্ষ খবর
পোস্টটি শেয়ার করুন

সাহেব-বাজার ডেস্ক : গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত রাখা ছাড়া উন্নয়ন সম্ভব নয় উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, গণতান্ত্রিক এই ধারা অব্যাহত থাকুক। শুক্রবার সন্ধ্যায় গণভবনে যুক্তফ্রন্টের নেতাদের সঙ্গে শুরু হওয়া সংলাপের সূচনা বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, তার সরকার অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে চায়। জনগণ যাতে তাদের নেতৃত্ব খুঁজে নিতে পারে সেটাই লক্ষ্য।

তিনি আরও বলেন, ‘অনেক বাধা অতিক্রম করে আমরা গণতান্ত্রিক ধারাকে অব্যাহত রাখছি। এ ধারা অব্যাহত থাকুক এবং উন্নয়নের গতি সচল থাকুক।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘গণতান্ত্রিক ধারা বজায় থাকলে দেশের মানুষ স্বাধীনভাবে ভোট দিতে পারে। আমরা সেই সুযোগ সৃষ্টি করতে চাই।’

এর আগে সংলাপে যোগ দিতে বিকল্পধারা বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরীর নেতৃত্বে যুক্তফ্রন্টের নেতারা সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে গণভবনে হাজির হন। পরে পৌনে ৮টার দিকে তাদের সঙ্গে সংলাপে বসেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ ক্ষমতাসীন জোটের নেতারা।

আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে সংলাপে অংশ নেওয়া আওয়ামী লীগ ও শরিক দলের নেতারাই যুক্তফ্রন্টের সঙ্গে সংলাপে উপস্থিত রয়েছেন।

অধ্যাপক বদরুদ্দোজা চৌধুরীর নেতৃত্বে যুক্তফ্রন্টের ২১ নেতা সংলাপে যোগ দিয়েছেন। এর আগে যুক্তফ্রন্টের পক্ষ থেকে ১৫ জনের তালিকা দেওয়া হলেও শুক্রবার তালিকার পরিধি বাড়িয়ে ২১ জন করা হয়।

সংলাপে অংশগ্রহণ করা যুক্তফ্রন্টের প্রতিনিধি দলের অন্য সদস্যরা হলেন— বিকল্পধারা বাংলাদেশের মহাসচিব মেজর (অব.) আবদুল মান্নান, দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য শমসের মবিন চৌধুরী, গোলাম সারোয়ার মিলন, আবদুর রউফ মান্নান, ইঞ্জিনিয়ার মুহম্মদ ইউসুফ, দলের সহ সভাপতি মাহমুদা চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার ওমর ফারুক, সম্প্রতি বিকল্পধারায় যোগদান করা সাবেক সংসদ সদস্য এইচ. এম গোলাম রেজা, মাযহারুল হক শাহ চৌধুরী, মাহবুবুর রহমান, জয় চৌধুরী, যুক্তফ্রন্টের শরীক বিএলডিপি সভাপতি ও সাবেক মন্ত্রী নাজিম উদ্দিন আল আজাদ, বিএলডিপির সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, বাংলাদেশ ন্যাপের চেয়ারম্যান জেবেল রহমান গানি, মহাসচিব এম গোলাম মোস্তফা ভুইয়া, এনডিপি চেয়ারম্যান খোন্দকার গোলাম মোর্ত্তুজা, মহাসচিব মহউর হোসাইন ঈশা, জাতীয় জনতা পার্টি চেয়ারম্যান শেখ আসাদুজ্জামান, বাংলাদেশ মাইনরিটি পরিষদের সভাপতি দিলীপ কুমার দাস, বাংলাদেশ লেবার পার্টির একাংশের চেয়ারম্যান হামদুল্লাহ আল মেহেদী রয়েছেন।

এর আগে বৃহস্পতিবার গণভবনে গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নেতাদের সঙ্গে সংলাপ করেন প্রধানমন্ত্রীসহ ক্ষমতাসীন জোটের নেতারা।

প্রায় সাড়ে ৩ ঘণ্টার সংলাপ শেষে গণভবন থেকে বেরিয়া তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় ড. কামাল হোসেন ‘আলোচনা ভালো হয়েছে’ বলে মন্তব্য করলেও পরে বেইলি রোডে নিজের বাসায় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি জানান, সংলাপে বিশেষ কোনো সমাধান তারা পাননি।

এসবি/এসএস